বাংলাদেশ ক্রিকেট

মিরাজ নিজেও বিশ্বাস করতে পারছিলেন না ওই থ্রোতে রানআউট হবে

দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে দুই ম্যাচ টেস্ট সিরিজের প্রথম ম্যাচে লড়াই করছে বাংলাদেশ দল। প্রোটিয়াদের বিপক্ষে প্রথম ইনিংসে বল হাতে বাংলাদেশ দল শুরুটা ভালো করতে না পারলেও খুব বেশি বড় পুঁজি পায়নি দক্ষিণ আফ্রিকাও। প্রথম ইনিংসে প্রোটিয়ারা অলআউট হয়েছে ৩৬৭ রানে। জবাবে খেলতে নেমে অবশ্য বাংলাদেশ দলও যে খব বেশি সুবিধাজনক অবস্থানে রয়েছে এমনটা বলা যাবে না। কেননা ইতোমধ্যেই ৪ উইকেট হারানো বাংলাদেশের স্কোরবোরড়ডে জমা পড়েছে মাত্র ৯৮ রান।

প্রথম ম্যাচের প্রথম দিনে দক্ষিণ আফ্রিকা ৪ উইকেট হারালেও সবচেয়ে আলোচিত উইকেটটি ছিল মেহেদি হাসান মিরাজের থ্রোতে পাওয়া উইকেটটি। তিন নম্বরে নামা কিগান পিটারসেন ব্যাট হাতে যখন ক্রিজে থিতু হয়েছেন তখন পয়েন্টে বল ঠেলে দিয়ে এক রান নেয়ার সময় দুর্দান্ত এক থ্রো করেন মিরাজ। সরাসরি বল স্ট্যাম্পে আঘাত হানার পর রান আউঠে কাটা পড়ে মাঠ ছাড়তে হয়েছিল পিটারসেনকে।

মিরাজের এমন দুর্দান্ত থ্রোতে পিটারসেনকে সাজঘরে ফিরিয়ে দেয়ার পর টাইগারদের হেড কোচ রাসেল ডমিঙ্গো প্রশংসায় ভাসিয়েছেন মিরাজকে। ম্যাচের প্রথম দিন শেষে হেড কোচ ডমিঙ্গো বলেছিলেন, ‘’আমার দেখা অন্যতম সেরা রান আউট ছিল এটা। ব্যাট ও বল হাতে সে আমাদের বিস্ময়কর এক ক্রিকেটার। সে ভালো কিছু ক্যাচও নিচ্ছে। দারুণ শক্তি আর মানসিকতা তার।‘’

এদিকে ম্যাচের দ্বিতীয় দিন শেষে সংবাদ সম্মেলনে আসেন মেহেদি হাসান মিরাজ। স্বাভাবিকভাবেই প্রথম দিনের দুরদান্ত ওই থ্রোর কথা উঠে আসে প্রশ্নে। মিরাজ অবশ্য জানিয়েছেন ওইরকম মুহূর্তে এভাবে থ্রো করে আউট করার পর ম্যাচের মোমেন্টাম পরিবর্তন হয়ে গিয়েছিল।

এরকম থ্রো করতে পেরে নিজের কাছেও ভালো লেগেছে তার এমনটা জানিয়ে মিরাজ বলেন, ‘’আলহামদুলিল্লাহ। আমি তো নিজেই চিন্তা করতে পারিনি। সবাই প্রশংসা করেছে। এমন রান আউটে মোমেন্টাম বদলে যায়। আমার কাছে খুব ভালো লেগেছে রান আউটটা।‘’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button